jamdani

হলুদের যাদুতে বয়স থাকবে হাতের মুঠোয়

ত্বকের সমস্যায় ভুগছেন? কাঁচা হলুদ থাকতে ভাবনা কিসের?  ত্বকের সব সমস্যার সমাধানে এর জুরি মেলা ভার। বহু প্রাচীনকাল থেকে ওষুধ রূপে হলুদ ব্যবহার হয়ে আসছে। এমনকি প্রসাধনী পণ্যেও এর ব্যবহার আমরা প্রত্যেকেই লক্ষ্য করে থাকি। বিশেষজ্ঞদের মতে, হলুদের মধ্যে রয়েছে অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট ও অ্যান্টি-ব্যাকটেরিয়ালের পাশাপাশি কারকিউমিন নামক উপাদান। যা ব্রণ থেকে শুরু করে ডার্ক সার্কেল, এমনকি ত্বকের যাবতীয় যে কোনও সমস্যা দূর করতে সহায়ক। ক্লিনজার থেকে শুরু করে ফেসপ্যাক হিসাবে ব্যবহার করতে পারেন হলুদকে। তবে সবচেয়ে কার্যকরী মাধ্যম হল ফেসপ্যাক হিসাবে ব্যবহার করা। আপনি হলুদকে ব্যবহার করে একাধিক ফেসপ্যাক তৈরি করতে পারেন এবং তা ত্বকের ওপর ব্যবহার করতে পারেন।

সূর্যের পোড়া দাগ এবং কালো দাগ ছোপ থকে রক্ষা

কড়া রোদ ত্বকের জন্য ক্ষতিকর। এর থেকেই সানবার্ন, পিগমেন্টেশনের মতো নানা সমস্যা দেখা দিতে পারে। রোদের ক্ষতিকর প্রভাব কমাতেও হলুদের জুড়ি মেলা ভার। তাই রোজ রোদে বেরোতে হলে নিয়মিত হলুদ মাখতে পারেন। তার জন্য বেসনের সঙ্গে দুধ ও কাঁচা হলুদ বাটা মিশিয়ে মুখে ভাল করে লাগিয়ে নিন। এতে সুরাহা মিলবে খুব চটপট।

রান্না করতে করতে প্রায়শই গরম তেল বা ঝোল ছিটকে পড়ে হাত পুড়ে যাওয়ার ভয় থাকে। এরফলে পোড়া অংশে কালো দাগের স্ষ্টি হয়, যা সহজে দূর হয় না। সেক্ষেত্রে অল্প দুধ কিংবা ঠান্ডা দইয়ে সামান্য হলুদ মিশিয়ে পোড়া জায়গায় লাগিয়ে নিতে পারেন। তারপর সেটা শুকিয়ে গেলে আলতো ভাবে ধুয়ে ফেলুন। এ ভাবে সপ্তাহ দু’য়েক এই ভাবে লাগাতে থাকলে পোড়া দাগ অনেকটাই হালকা হয়ে যাবে।

বলিরেখা দূর করুন হলুদের যাদুতে

অ্যান্টি-এজিং ফ্যাক্টর হিসেবেও হলুদ কাজ করে। এমনকি ডার্ক স্পট, ফাইন লাইনস বা বলিরেখা দূর করতে পারে হলুদের ব্যবহার। চোখের তলায় বা চারপাশে কালি পড়লে রোজ ঘুমোতে যাওয়ার আগে চোখের চারপাশে হলুদ বেটে সেই রস লাগিয়ে শুতে যান। ঘুম থেকে উঠে ধুয়ে ফেলুন। ত্বকের পরিচর্যায় শুধু হলুদ মাখলেই চলবে না। উজ্জ্বল ত্বক ও সুস্থ শরীরের জন্য নিয়মিত হলুদ খাওয়াও জরুরি। টারমারিক টি-ও শরীরের জন্য খুব ভাল। ৪ কাপ জলে ১ চা চামচ কাঁচা হলুদ দিয়ে ভাল করে ফুটিয়ে নিন। এর মধ্যে অল্প পাতিলেবুর রস ও ১ চা চামচ মধু মিশিয়ে নিন। টারমারিক টি-ও বেশ উপকারী।

ত্বকে ব্রণ বা তার দাগ থেকে মুক্তি

যে কোনও ত্বকের দাগ-ছোপ দূর করতে হলুদের জুড়ি মেলা ভার। আবার অ্যান্টিসেপটিক হিসেবেও কাজ করে হলুদ। তবে কাঁচা হলুদ ত্বকে সরাসরি না লাগানোই ভাল। কারণ অনেক  সময় অ্যালার্জির সমস্যা হতে পারে এর ফলে। সেক্ষেত্রে হলুদের সঙ্গে দুধের সর , দই বা মূলতানি মাটি, ময়দা বা যে কোনও ফলের রস মিশিয়ে ব্যবহার করলে সবথেকে বেশি উপকার পাওয়া যায়। বিশেষজ্ঞদের মতে হলুদ অ্যান্টিইনফ্ল্যামেটরি হওয়ায় ত্বকের ক্ষত সারায়। অন্য দিকে ওপেন পোরসও বন্ধ করে। এর অ্যান্টিসেপটিক কোয়ালিটি ত্বকে ব্রণ বা তার দাগ সারায় তাড়াতাড়ি। ব্রণ কমাতে পাতিলেবুর রস, শসার রসের সঙ্গে হলুদ বাটা মিশিয়ে ব্রণর উপরে ১০-১৫ মিনিট রেখে দিন। এতে ব্রণ শুকিয়ে যায় তাড়াতাড়ি। আবার ব্রণ সারার পরে তার দাগ তুলতে এই প্যাকের সঙ্গে নারকেল তেল বা তিল তেল মিশিয়ে নিন।

ফেসপ্যাক হিসেবে ত্বকে ব্যবহার করুন হলুদঃ

অ্যান্টিঅ্যাকনি ফেসপ্যাক

ভিটামিন সি-তে ভরপুর হলুদে রয়েছে প্রচুর পরিমাণে আয়রন, ম্যাঙ্গানিজ, ফাইবার, ভিটামিন বি৬ এবং পটাশিয়াম। হলুদের অ্যান্টিব্যাকটেরিয়াল এর উপস্থিতি ব্রণ দূর করতে সাহায্য করে। অপরদিকে অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট এবং অ্যান্টি-ইনফ্লেমেটরি বৈশিষ্ট্য প্রদাহ কমাতে সাহায্য করে। ফলে হলুদের সঙ্গে মধু সমান পরিমাণে মিশিয়ে নিয়ে অ্যান্টি-অ্যাকনি ফেসপ্যাক তৈরি করতে পারেন। যা ব্রণর ওপর লাগিয়ে সারারাত রেখে দিয়ে পরে সকালে উঠে ঠান্ডা জল দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। সপ্তাহে তিনবার এটি ব্যবহার করলেই অ্যাকনি মুক্ত হবে আপনার ত্বক।

ডার্ক সার্কেল থেকে মুক্তি পেতে, হলুদ এবং দুধের ক্রিম দিয়ে তৈরি ফেসপ্যাক

ডার্ক সার্কেলের সমস্যার সমাধানে হলুদ এবং দুধের ক্রিম দিয়ে বাড়িতেই একটি মাস্ক তৈরি করুন । মাস্কটি তৈরি হয়ে গেলে তা চোখের নীচে লাগান। ৫ মিনিট পর জল দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। সপ্তাহে চার থেকে পাঁচ দিন এই মাস্কের ব্যবহারে ডার্ক সার্কেলের সমস্যার হাত থেকে মিলবে রেহাই।

সূর্যের পোড়া দাগ থেকে ত্বককে সুরক্ষিত রাখতে, হলুদ এবং চন্দনের তৈরি ফেসপ্যাক

হলুদের অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট এবং অ্যান্টি-ইনফ্লেমেটরি বৈশিষ্ট্যের কারণে এটি ব্রণর হাত থেকে মুক্তি পেতে সাহায্য করে। এই ফেসপ্যাকটি তৈরি করতে এক চামচ দইয়ের সঙ্গে এক চা চামচ চন্দন গুঁড়ো, এক চিমটি হলুদের গুঁড়ো মিশিয়ে নিন। এবার এই পেস্টটি তৈরি করে মুখে লাগান। ২০ মিনিট পর ধুয়ে ফেলুন। এই ফেসপ্যাকটি নিয়মিত ব্যবহার করলে এটি ত্বককে UV রশ্মির হাত থেকে রক্ষা করতে সাহায্য করে।

Trending


Would you like to receive notifications on latest updates? No Yes