jamdani

আজই স্বাদ নিন চম্পারন হাণ্ডি মাটনের

ভোজন প্রিয় বাঙালির কাছে রবিবার মানেই মাংস-ডে। যদিও রেড মিট খাওয়া এখন অনেকেই এড়িয়ে চলেন তবে মাঝেমধ্যে জিভের স্বাদ বদল করলে মন্দ কি? তার ওপর এখন আবার শীতকাল। আর শীতকাল মানেই হল পিকনিক সিজন। তাই সব কিছু মনে রেখেই আজ রইল মটনের একটা রেসিপি। ঝটপট রান্না হওয়া এই রেসিপির উদ্ভব আমাদের পড়শি রাজ্য বিহারের চম্পারন অঞ্চল থেকে। তবে, বাংলাতেও এই খাবার যথেষ্ট জনপ্রিয়। এক কথায়, এটা হল ওয়ান পট মটন রেসিপি। তবে এই রান্নার বৈশিষ্ট্য হল, এটি তৈরি করতে হয় মাটির হাঁড়িতে।
আপনার রোজকার সাধারণ মাটন খেতে অসাধারণ হয়ে উঠবে, কেবলমাত্র মাটির হাঁড়িতে রান্না হওয়ার গুণে।

উপকরণ- 
মাটন- ১ কেজি, টুকরো করে কাটা
পেয়াজঃ ৭৫০গ্রাম, কুচোনো
রসুনঃ ২ টেবিল চামচ বাঁটা
আদা বাঁটাঃ ৪ টেবিল চামচ বাঁটা
জিরে গুঁড়োঃ ১ টেবিল চামচ
ধনে গুঁড়োঃ ১ টেবিল চামচ
হলুদ গুঁড়োঃ ১ টেবিল চামচ
লঙ্কা গুঁড়োঃ ২ টেবিল চামচ
কাঁচা লঙ্কাঃ ৪টে গোটা
কাশ্মীরি লঙ্কার গুঁড়োঃ ২ টেবিল চামচ
পাতি লেবুর রসঃ ২ টেবিল চামচ
টক দইঃ ১৫০ গ্রাম
গোলমরিচঃ ৮টা, গুঁড়ো করা। কয়েকটা গোলমরিচ গোটা রাখবেন
লবঙ্গঃ ৮টা
দারচিনিঃ ১/২”
তেজপাতাঃ ৪টে
গোটা জিরেঃ ১ টেবিল চামচ
সরষের তেলঃ ১/২ কাপ
নুনঃ আন্দাজমত
ধনেপাতাঃ ১ আঁটি। ভালো করে কুচোনো
আটাঃ অল্প করে মাখা। হাঁড়ির ঢাকনা বন্ধ করার জন্য

প্রণালী- 
প্রথমে, মাটন পরিষ্কার করে উষ্ণ জলে ভালো করে ধুয়ে নিন। এবার সরষের তেল, পেঁয়াজ কুঁচি, সমস্ত মশলা আর টক দই দিয়ে মাংস ভালো করে ম্যারিনেট করে ১ঘণ্টা রেখে দিন। এবার মাটির হাঁড়ি গরম করুন ও তাতে তেল দিন। তেল গরম হলে একে একে গোটা জিরে, লবঙ্গ, দারচিনি, কয়েকটা গোটা গোলমরিচ ও তেজপাতা ফোঁড়ন দিন। এগুলো তেলে অল্প নেড়ে তাতে এবার ম্যারিনেটেড মাংস দিন। ভালো করে কষান। এবার প্রয়োজনমত গরম জল দিন। আটা দিয়ে ভালো করে হাঁড়ির ঢাকনা বন্ধ করুন আর ধিমে আঁচে মাংস রান্না হতে দিন। মাংস রান্না হয়ে গেলে, নামানোর আগে ওপর দিয়ে ধনেপাতা ছড়িয়ে দিন আর গরম গরম পরিবেশন করুন চম্পারন হাণ্ডি মাটন।

Trending


Would you like to receive notifications on latest updates? No Yes