jamdani

এই বিষয়গুলো জেনে বেনারসি কিনলে ঠকবেন না  

প্রাচীনকাল থেকে বর্তমান, বেনারসির কদর বেড়েছে বৈ কমেনি। এর আভিজাত্যপূর্ণ উজ্জ্বল, সূক্ষ্ম কারুকাজ সহজেই সকলের নজর কাড়ে। আর যদি হয় বাঙালি বিয়ে, তাহলে কনের পরনে থাকবেই জমকালো বেনারসি শাড়ি। তবে অনেকেই এমন আছেন যারা বেনারসি কিনে ঠকে যান বা ঠকেছেন। এর একমাত্র কারণ হল, এই বিশেষ শাড়িটিকে তারা ঠিকভাবে চেনেন না। তাই কেনার আগে যদি আসল বেনারসি কিনা যাচাই করার কৌশলগুলো মাথায় থাকে, তাহলে শাড়ি কিনে ঠকতে হয় না।

যেভাবে চিনবেন খাঁটি বেনারসিঃ

  • বেনারসি শাড়ি তৈরি হয় ভালো মানের সিল্ক সুতো এবং ‍জরি দিয়ে এই জরি গোল্ডেন বা সিলভার দুই রঙের হয়ে থাকে। একটি খাঁটি বেনারসি শাড়িতে থাকবে বিভিন্ন ফুলের নকশা, মোঘল মোটিফ যেমন – দোমাক, আমরু, আমবি ইত্যাদি। কিন্তু নকল বেনারসি শাড়িতে এই সকল মোটিফ থাকবে না।
  • বেনারসি মূলত সিল্কের সুতা দিয়ে তৈরি হয়।  শাড়িটি সামান্য হাতে ঘষে দেখুন, গরম অনুভূত হলে বুঝবেন সেটা আসল সিল্ক বেনারসি
  • বেনারসি শাড়িটিকে উল্টে দেখুন, আসল বেনারসি হলে উল্টোদিকে ঘন সুতো লক্ষ্য করা যাবে। নকল বেনারসিতে সেটা থাকে না।
  • খাঁটি সিল্কের বেনারসি হলে শাড়িটি সহজেই একটি আংটির ভিতর দিয়ে প্রবেশ করবেতবে নকল হলে তা সম্ভব নয়
  • অরিজিনাল বেনারসি শাড়ির আঁচলে ৬-৮ ইঞ্চি মাপের সমান্তরাল সিল্কের প্যাচ থাকে। নকল বেনারসিতে তা থাকে না।
  • তবে শাড়ি যদি আগেই কিনে ফেলেন তাহলে খাঁটি কিনা যাচাই করেতে শাড়ির শেষের অংশের একটা কোণা সামান্য আগুনের স্পর্শে আনুন। খাঁটি সিল্ক হলে আগুনে পোড়ালে চুলপোড়ার মতো গন্ধ বের হবে। এছাড়া পোড়া সেই ছাই স্পর্শ করলে সঙ্গে সঙ্গে গুঁড়ো হয়ে যায়।

 

Trending

Most Popular


Would you like to receive notifications on latest updates? No Yes