jamdani

গান, সুগন্ধী, অ্যারোমা-য় চাপমুক্তি

বিয়ের সানাই এই বাজলো বলে… বলতে গেলে মরসুম চলছে বিয়ের। ৫০ জন অতিথি তালিকা থেকে এখন সেটা দাঁড়িয়েছে ২০০ জনে। একের পর এক সেলেব্রিটি বিয়ের সঙ্গে আমজনতাও পিছিয়ে নেই। তবে যারা এই বিয়ের ঢেউয়ে গা ভাসাতে চলেছেন তাঁদের কাছে সময়টা বেশ চাপের। তবে প্রথমেই বলেছি, সর্বাঙ্গীণ সুন্দর হয়ে উঠতে সবার আগে দরকার মানসিক স্থিতি ও শান্তি। আর তাই বিয়ে পাকা হওয়ার পর আপনার প্রথম কাজ যথাসম্ভব চাপমুক্ত থাকার চেষ্টা করা৷

কীভাবে কাটিয়ে উঠবেন বিয়ের টেনশন?

  • মনের মধ্যে অহেতুক সংশয় পুষে না রেখে কাছের মানুষদের সঙ্গে ভাগ করে নিন।
  • এছাড়া হবু স্বামীর সঙ্গে সরাসরি কথা বলে নিতে পারলে মন অনেকটাই হালকা হবে।
  • আজকাল অনেকেই চাপমুক্ত থাকতে বিয়ের আগে প্রি-ম্যারিটাল কাউন্সেলিং করাচ্ছেন। প্রয়োজন মনে করলে অবশ্যই প্রাক-বৈবাহিক কাউন্সেলিংয়ের পথে হাঁটতেই পারেন।

  • সামনে বিয়ে বলে সারাদিন শুধু বিয়ের চিন্তাই করবেন? এমনটা তো নয়। অন্যান্য দিকগুলোও একইরকম গুরুত্বপূর্ণ৷ নিজের কাজে মন দিন, বন্ধুদের সঙ্গে অবসর সময় কাটান৷ গান শুনুন, বাগান করুন – দেখবেন, মন বেশ ফুরফুরে লাগছে৷
  • গবেষণায় দেখা গেছে অ্যারোমাথেরাপির সাহায্যে স্ট্রেস অনেকটাই কমানো সম্ভব। সুগন্ধি পারফিউম মাখুন, অ্যারোমা অয়েল ডিফিউজার বা সেন্টেড ক্যান্ডেল রাখুন ঘরে৷ দেখবেন অহেতুক দুশ্চিন্তা আর জ্বালাচ্ছে না!

কোন কোন সুগন্ধি মন হালকা রাখতে সাহায্য করে?

  • ল্যাভেন্ডারের সুগন্ধ মন শান্ত করে, মনে একটা পরিপূর্ণ তৃপ্তির বোধ আসে।
  • লেবুর গন্ধে একটা চনমনে তরতাজা ভাব রয়েছে যা মন খারাপ কাটিয়ে উঠতে সাহায্য করে।
  • পেপারমিন্ট মানসিক সক্রিয়তা বাড়ায়। ঝটপট সিদ্ধান্ত নিতেও সাহায্য করে।
  • মনের আনন্দ দ্বিগুণ করে তুলতে জুড়ি নেই ভ্যানিলা সুগন্ধের।
  • জুঁইয়ের গন্ধের সঙ্গে এক চিরকালীন রোমান্টিকতার আবহ জড়িয়ে। তা ছাড়াও নেগেটিভ চিন্তাভাবনা তাড়াতেও জুঁইয়ের গন্ধ খুবই কাজের!

অ্যারোমা অয়েল-এর ব্যবহার

  • পছন্দের সুগন্ধি পারফিউম হিসেবে মাখুন। কানের পিছনে, কবজিতে বা অন্য যে কোনও পালস পয়েন্টে দু’ একফোঁটা মেখে নিলেই দিনভর ফুরফুরে থাকবেন।
  • পছন্দের সুগন্ধির এসেনশিয়াল অয়েল কিনুন। অয়েল ডিফিউজারে দিয়ে রেখে দিন। হালকা সুগন্ধে ভরে থাকবে ঘর।
  • সেন্টেড ক্যান্ডেল আজকাল সব জায়গায় পাওয়া যায়। ঘরের এক কোণে জ্বালিয়ে রাখলেই হল! না হলে নিজেও বানিয়ে নিতে পারেন পছন্দসই সুগন্ধী মোমবাতি। প্রথমে একটা পাত্রে মোম গলিয়ে নিন। গলানো মোমে আধ টেবিলচামচ পছন্দসই এসেনশিয়াল অয়েল মেশান। এবার মিশ্রণটা একটা কাচের পাত্রে ঢেলে মাঝখানে একটা লম্বা সলতে গুঁজে দিন। ঠান্ডা হয়ে গেলেই ব্যস তৈরি আপনার পছন্দের সেন্টেড ক্যান্ডেল।

ফ্যাশন, মেকআপ- keya seth exclushive &  keya seth  makeup studio

Trending


Would you like to receive notifications on latest updates? No Yes