jamdani

বিয়ের আগে ত্বক নিয়ে চিন্তা? চন্দনের চমকেই বাড়বে জৌলুস !

শুধু আজকের নয়, চন্দন কাঠ অনেক আগে থেকেই রূপচর্চায় ব্যবহৃত হয়ে আসছে। ওষুধ হিসেবেও চন্দন ব্যবহার করা হতো। চন্দন তার সুন্দর ঘ্রাণের জন্য খুব বিখ্যাত। ভারত ছাড়াও দক্ষিণ এশিয়া, ইন্দোনেশিয়া ও অস্ট্রেলিয়াতেও এই গাছ দেখা যায়। চন্দন কাঠের সৌন্দর্য বহুদিন ধরেই ব্যবহার হয়ে আসছে।

কিছুদিনের মধ্যেই কি বিয়ে? তাহলে বিয়ের আগে এই ফেসিয়ালগুলি করে নিন। আপনি যদি নিয়মিত আপনার ত্বকের যত্ন না নেন, তাহলে ত্বকের উজ্জ্বলতা ভেতর থেকে আসে না। ত্বকে পুষ্টি দেয় না। অন্যদিকে, রাসায়নিকের প্রভাবে ত্বকে বলিরেখা হতে পারে। জেনে নিন চন্দনের ফেসপ্যাক ব্যবহার-

রূপচর্চায় চন্দন

ব্রন, বলিরেখা থেকে ট্যান এই সব সমস্যারই মুশকিল আসান হল চন্দন। চন্দনের মধ্যে থাকা অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট রক্ত সঞ্চালন ঠিক রাখে। রক্তকে পরিষ্কার রাখে। এছাড়াও ট্যান দূর করতেও সাহায্য করে চন্দন।  এটি ত্বককেও পরিষ্কার করে। চন্দন ট্যান দূর করতেও সাহায্য করে। হলুদের গুঁড়ো, গোলাপজল এবং চন্দনের মিশ্রণ ডার্ক সার্কেলকে নরম করে। মুখে দাগ থাকলে তাও মিলিয়ে যায়।

দুধ-চন্দনের ফেসপ্যাক

ত্বককে ভেতর থেকে উজ্জ্বল রাখতে সাহায্য করে এই ফেসপ্যাক। দুধের সঙ্গে চন্দন পাউডার, মূলতানি মাটি, গোলাপ জল মিশিয়ে একটি প্যাক বানান। প্যাক বানিয়ে ১৫ থেকে ২০ মিনিট রাখুন। এরপর ঠান্ডা জলে ধুয়ে ফেলুন।  খুব বেশি শুকনো করে ফেলবেন না। এতে টান ধরে যাবে মুখের চামড়ায়য়। যার ফলে চামড়া কুঁচকে যাওয়ার মতো সমস্যা আসতে পারে। এই ফেসপ্যাক সবরকম ত্বকেই লাগানো যাবে। 

কমলালেবু ও নিমের ফেসপ্যাক

যাঁদের ত্বক তেলতেলে, খুব বেশি ব্রণ হয় এই ফেসপ্যাক তাঁদের জন্য। একটি বাটিতে চন্দনের গুঁড়ো, কমলালেবুর রস, নিম পাতা বাটা, মূলতানি মাটি নিন। এর সঙ্গে মধু আর পাতিলেবুর রস মেশান। এবার গোলাপ জল দিয়ে প্যাক বানিয়ে মুখে লাগান। ২০ মিনিট রেখে ধুয়ে ফেলুন। সপ্তাহে দুদিন এই প্যাক লাগালে ভালো উপকার পাবেন। মুখ ধুয়ে একটু বরফও ঘষে নিতে পারেন।

শসা ও আলুর রসের প্যাক

শসার রস দু চামচ, আলুর রস দু চামচ নিন । এই দুটো ভালো করে মিশলে ওর মধ্যে মধু আর লেবুর রস দিন। এবার ওর মধ্যে হাফ চামচ চন্দনের গুঁড়ো মিশিয়ে নিন। প্রতিদিন সুবিধামতো যে কোনও একটা সময় এই প্যাক মুখে লাগান। মুখ থেকে ক্লান্তিভাব দূর হয়ে যাবে।

Trending


Would you like to receive notifications on latest updates? No Yes