jamdani

মেয়ের জন্মের পরেই ট্যুইটারে বদল বিরাটের

মেয়ের জন্ম হয়েছে এক সপ্তাহ হতে চলল। বিরুষ্কার মেয়ে নিরাপত্তার কঠোর বেষ্টনীর মধ্যে মুড়ে রয়েছে। যে তার ছবি এখনও পর্যন্ত প্রকাশ্যে আসেনি। সেলিব্রিটিদের ক্ষেত্রে এরকম ঘটনা সচরাচর দেখতে পাওয়া যায় না।

তবে বিরুষ্কার প্রথম সন্তানের জন্ম বলে কথা। কারণ সব বাবা-মায়ের কাছেই তাদের প্রথম সন্তান একটু স্পেশাল হয়ই। আর বলিউড এবং ক্রিকেটের এই পাওয়ারফুল কাপল প্রথম থেকেই জানিয়ে দিয়েছিলেন, তাঁদের কাছে সন্তান ছেলে না মেয়ে, সেটা বড় কথা নয়। যেই আসুক, তাঁরা একইরকম ভাবে খুশি হবেন।

এই কারণেই মেয়ের জন্মের খবর দিতে গিয়েও প্রচলিত প্রথা ভেঙেছিলেন বিরাট কোহলি। মূলত ছেলে হলে আকাশী আর মেয়ের সঙ্গে গোলাপী রঙকে প্রাধান্য দেওয়া হয় সর্বত্র। কিন্তু বিরাট এক্ষেত্রে মেয়ের জন্মের সুখবর দিতে বেছে নিয়েছিলেন উজ্জ্বল হলুদ রং। এভাবে বুঝিয়ে দিয়েছিলেন, তিনি লিঙ্গের ভিত্তিতে শ্রেণী বিভাজনে বিশ্বাস করেন না। আর শুধুমাত্র তাই নয়, বাবা হওয়ার সঙ্গে সঙ্গেই বিরাটের ট্যুইটার অ্যাকাউন্টের বায়ো-তেও লক্ষ্য করা গিয়েছে পরিবর্তন। সেখানে লেখা আছে ‘বিরাট কোহলি- একজন গর্বিত স্বামী ও বাবা।’

প্রসঙ্গত গত ১১ জানুয়ারি, বিকেলে মুম্বইয়ে ব্রিচ ক্যান্ডি হাসপাতালে জন্ম হয় বিরুষ্কার প্রথম সন্তানের। জন্মের সঙ্গে সঙ্গেই সেই খবর সোশ্যাল মিডিয়ায় জানিয়ে দেন বিরাট। কিন্তু তাঁরা মেয়ের কোনও ছবি পোস্ট করেননি। এ দিকে, বিরুষ্কার ঘরে নবজাতকের আগমনের খবর ভাইরাল হতেই গুগল জুড়ে ক্রমাগত বেবির ছবি সার্চ করা শুরু হয়। কিন্তু কোথাও তেমন বিশ্বাসযোগ্য ছবি দেখতে না পেয়ে হতাশ ভক্তরা।

আসলে বিরাট-অনুষ্কা দু’জনেই চান যে, তাঁদের মেয়ের প্রাইভেসি যেন এতটুকু ক্ষুন্ন না হয়। ছোট থেকেই সে স্পেশ্যাল কোনও সুবিধা ভোগ করুক বা তাকে নিয়ে আলাদাভাবে কোনও মাতামাতি হোক সেটা তাঁরা চান না কেউই। আর এই কারণেই মুম্বইয়ের প্রতিটি সেলিব্রিটি ফোটোগ্রাফারকে বিরুষ্কা ব্যক্তিগত ভাবে অনুরোধ জানিয়েছেন তাঁদের মেয়ের যেন কোনও ছবি না তোলেন।

 

Trending

Most Popular


Would you like to receive notifications on latest updates? No Yes