jamdani

ঢাকাই ভুনা চিংড়ি রাখুন জামাইষষ্ঠীর পঞ্চব্যাঞ্জনে

এই তো কয়েক দশক আগেও জামাইষষ্ঠীর কয়েকদিন আগে থেকেই সাজ সাজ রব পড়ে যেত। কাঁসার বা রুপোর থালার চারপাশে সাজানো পঞ্চব্যাঞ্জন। যত্নে বোনা নরম আসনে জামাই বাবাজীবনেরা বসে আয়েস করে তারিয়ে তারিয়ে রসাস্বাদন করতেন পঞ্চব্যাঞ্জনের। তবে সময়ের সঙ্গে তালমিলিয়ে বদলেছে রুচিবোধ। পঞ্চব্যাঞ্জনেও হয়েছে প্রচুর রদবদল। আর সেই রদবদলে আপনি আনতেই পাড়েন সামান্য রান্নায় টুইস্ট ‘ঢাকাই ভুনা চিংড়ির’ মাধ্যমে। যা খেয়ে আপনার জামাই বাবাজীবন আপনার প্রশংসায় হয়ে উঠবেন পঞ্চমূখ। তাহলে আর দেরি কেন? জেনে নিন রেসিপিটি।

উপকরণ

  • বাগদা বা গলদা চিংড়ি – ৪ টি
  • সরষের তেল – ৩ টেবিল চামচ
  • পেঁয়াজবাটা – ২ টেবিল চামচ
  • আদাবাটা – ১/২ টেবিল চামচ
  • রসুনবাটা – ১/২ টেবিল চামচ
  • হলুদগুঁড়ো – ১/২ টেবিল চামচ
  • জিরেগুঁড়ো – ১/২ টেবিল চামচ
  • ধনেগুঁড়ো – ১/২ টেবিল চামচ
  • লঙ্কাগুঁড়ো – ১/২ টেবিল চামচ
  • নুন – স্বাদ অনুযায়ী
  • পোস্তবাটা – ১/২ টেবিল চামচ
  • কাঁচালঙ্কা – ২ টি
  • ধনেপাতাকুচি – ১ টেবিলচামচ
  • গরমমশলার গুঁড়ো – ১/২ টেবিল চামচ

পদ্ধতি

  • কড়াইতে সরষের তেল দিয়ে গরম করুন।
  • ধোঁয়া উঠলে তাতে চিংড়ি মাছ ছেড়ে ভেঁজে নিন অল্প করে।
  • মাছ তুলে নিয়ে ওই তেলেই প্রথমে পেঁয়াজবাটাটা দিন।
  • কষতে কষতে সুগন্ধ উঠলে আদাবাটা আর রসুনবাটাটাও দিয়ে দিতে হবে।
  • বাটা মশলা কষা হয়ে গেলে একটি ছোট পাত্রে গুঁড়ো মশলা আর জল গুলে পেস্ট তৈরি করে নিন।
  • তারপর এই মশলাটি যোগ করে দিন আদা-পেঁয়াজ-রসুনের মিশ্রণে।
  • কষা হয়ে গেলে মশলা তেল ছাড়তে আরম্ভ করবে।
  • তখন চিংড়ি আর কাঁচালঙ্কা দিয়ে দিন।
  • শেষে পোস্তবাটা দিয়ে ফের খানিকক্ষণ নাড়াচাড়া করুন এবং ঢাকা দিয়ে রান্নাটা ভালো করে হতে দিন।
  • একেবারে শেষে গরম মশলার গুঁড়ো আর ধনেপাতাকুচি দিয়ে নামিয়ে নিতে হবে।
  • গরম গরম পরিবেশন করুন ভাত বা পোলাওয়ের সঙ্গে।

Trending


Would you like to receive notifications on latest updates? No Yes