jamdani

খসখসে হাত পায়ে মসৃণতা আনতে

মসৃণ, চকচকে সুন্দর মুখ আর অমসৃণ, খসখসে হাত-পা কিন্তু খুব বেমানান। প্রিয়জনের হাতে হাত রাখতে এমন অনুভূতির শিকার যেন হতে না হয় আপনাকে। তাই, শুধু মুখে নয়, সারা শরীরের জন্য কিছু যত্নের দরকার। আমরা অনেক সময় মুখে প্যাক লাগাই, তেল মাখি কিন্তু হাতের কথা ভুলে যাই। অথচ সমস্ত কাজকর্মের হাতিয়ার কিন্তু এই হাত দুটো। কাজকর্মের ফাঁকে ফাঁকে সামান্য সতর্কতাই কিন্তু হাতের যত্নে যথেষ্ট। সর্বপ্রথম বলব তেল মাখার কথা। কাজের শেষে বা স্নানের পরে তেল ভাল করে মেখে নিন হাতের পাতায়। একটু অপেক্ষা করুন যাতে তেল শুষে নিতে পারে ত্বক। স্নানের পরে সারা শরীরে হ্যান্ড অ্যান্ড বডি লোশন মাখার কথা ভুলবেন না। বাইরে বেরোবার সময় মেখে বেরোলেও ব্যাগে রাখুন ছোট শিশি। মাঝেমধ্যে হাত শুকনো মনে হলে লাগিয়ে নিন। যাঁরা বাড়িতে বেশি কাজ করেন যেমন, সাবান কাচা, বাসন ধোওয়া তাঁদের জন্য গ্লিসারিন আরও ভাল। কাজের পর হাত শুকনো করে মুছে গ্লিসারিন লাগিয়ে নিন। হাত মসৃণ থাকবে।

  • হাতেও কিন্তু মৃত কোষ জন্মে। হাত দিয়ে সবসময় কাজ করা হয় বলে হাতের পাতা দুটি খুব সহজেই খসখসে হয়ে যায়। সামান্য যত্নেই এই সমস্যা থেকে রেহাই পাওয়া যায়। একটি পাতিলেবুর রসে ১ চামচ চিনি মিশিয়ে দু’হাতে নিয়ে ঘষতে থাকুন, যতক্ষণ না চিনি গলে যায়। চিনির দানা গলে গেলে হাত ধুয়ে ফেলুন।
  • নুন কিন্তু খুব ভালো এক্সফোলিয়েটর। তবে, সেন্সেটিভ ত্বকে নুন ব্যবহার করবেন না।
  • সপ্তাহে একদিন ম্যানিকিওর করতে পারলে ভালো। এতে হাতের ত্বক ভালো থাকার সঙ্গে সঙ্গে নখও ভালো থাকবে।
  • শীতকালে আমাদের কনুই, হাঁটু এগুলোতে কালো কালো ছোপ পড়ে, খসখসে দানা দানা হয়ে যায়। পাতিলেবুর রস ও দুধ মিশিয়ে কালো অংশে লাগালে ছোপ চলে যাবে। পাতিলেবু ও চিনির মিশ্রণ ঘষলে দানা দানা খসখসে ভাব ধীরে ধীরে কমে আসবে। এর পরে তেল লাগাবেন, যাতে ঘর্ষণের হাত থেকে এই জায়গাগুলি মুক্তি পায়।
  • হাতে যদি কাটা দাগ, কালো দাগ হয় তবে তিল তেল গরম করে লাগান।

  • পা ফাটা অনেকেরই এক দারুণ সমস্যার ব্যাপার। শীতকাল তো বটেই, কারও কারও সারা বছরই পা ফাটা থাকে। চামড়া উঠে গিয়ে গর্ত হয়ে যাওয়া, রক্ত পড়া, ব্যথা, গোড়ালি ফুলে যাওয়া ইত্যাদিতে জর্জরিত হন অনেকেই। পা ফাটার সমস্যা কমাতে পা পরিস্কার রাখা অত্যন্ত জরুরি। কাজের শেষে বাড়ি ফিরে গামলায় ঈষদুষ্ণ জলে সামান্য শ্যাম্পু মিশিয়ে পা ধুয়ে নিন। পা শুকনো করে মুছে জল মেশানো গ্লিসারিন লাগিয়ে নিন। রাতে মোজা পরে শুতে যাবেন।
  • শীতকালে নারকেল তেল ও অলিভ অয়েল সমপরিমাণে মিশিয়েও লাগাতে পারেন। এটি শুধু ফাটা অংশে নয়, পুরো পায়ের পাতাতেই লাগিয়ে নিন।
  • বটগাছের পাতার আঠা পায়ের ফাটায় লাগালে উপকার পাবেন।

Trending


Would you like to receive notifications on latest updates? No Yes